হাটহাজারীতে বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে একজনের মৃত্যু

প্রকাশিত

খোরশেদ আলম শিমুল, হাটহাজারী : হাটহাজারীতে সকালে নামাজ পড়তে গিয়ে বাসের ধাক্কায় প্রাণ হারালেন হাজী মোঃ মুছা সওদাগর (৭৭) নামে এক ব্যবসায়ী।

সে উত্তর মার্দাশা বদিউল আলম হাট আলি মেম্বার বাড়ির মৃত সোনা মিয়ার ছেলে। দুর্ঘটনার পর স্থানীয়রা সড়কে বেড়িকেড দিলে প্রায় দুই ঘন্টা চট্টগ্রামের সাথে হাটহাজারীর সড়ক যোগাযোগ বন্ধ ছিল। পরে পুলিশ ৯ টা ১৫ মিনিটে সড়ক যোগাযোগ স্বাভাবিক করে দেয়। গহিরা হাইওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে হাটহাজারী থানায় নিয়ে আসে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার সকাল সোয়া ৭টার দিকে চট্টগ্রাম-হাটহাজারী মহাসড়কের বড়দিঘিরপাড় এলাকায় বড়দিঘিরপাড় সুলতান নশরত শাহ জামে মসজিদের বিপরীতে হাটহাজারী থেকে শহরমুখি দ্রুতগতির একটি বেপোরোয়া বাস চট্র মেট্রো-জ১১-১৭২৭ মোঃ মুছা সওদাগরকে ধাক্কা দিয়ে প্রায় ৪০ ফুট দূরে নিয়ে যায়।
মুছা সওদাগরের মরদেহ বাসের নিচ থেকে স্থানীয়রা পুলিশের সহযোগীতায় উদ্ধার করে হাটহাজারী থানায় নিয়ে আসে। সে নামাজের পর হাঁটাহাঁটি করছিল।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার একই স্থানে হাটহাজারীতে এশার নামাজ পড়তে গিয়ে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় প্রাণ হারান দিদারুল আলম বুলু (৪২) নামে এক দোকান কর্মচারী।

শেয়ার করুন