মিটার না থাকায় চট্টগ্রামে সিএনজির বর্ধিত ভাড়া কার্যকর হবে না

প্রকাশিত

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি : বন্দরনগরী চট্টগ্রামে চলাচলরত কোনো অটোরিকশায় মিটার না থাকায় সরকারনির্ধারিত বর্ধিত ভাড়া কার্যকর হচ্ছে না। আজ রোববার থেকে রাজধানী ঢাকায় সিএনজিচালিত অটোরিকশার বর্ধিত ভাড়া কার্যকর হচ্ছে।

অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের ক্ষেত্রে মিটারে দূরত্ব পরিমাপের বিষয়টি নিশ্চিত না হওয়ায় পরিবহণ সেক্টরের সম্ভাব্য নৈরাজ্য ঠেকাতে চট্টগ্রামের সিএনজি চালক-মালিকরা বর্ধিত ভাড়া কার্যকর না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানা গেছে।

তবে চট্টগ্রামে সিএনজি অটোরিকশা মিটারে চলাচল না করায় সরকারনির্ধারিত ভাড়ার চেয়ে কয়েকগুণ বেশি ভাড়া আদায় করে বলে অভিযোগ রয়েছে। চট্টগ্রামে এখন সর্বনিম্ন দূরত্বের সিএনজি ভাড়াও ৮০ টাকা। যদিও সরকারনির্ধারিত প্রথম দুই কিলোমিটারের বর্ধিত ভাড়া ৪০ টাকা। অথচ চট্টগ্রামে এক কিলোমিটার দূরত্বে গেলেও ৮০ টাকার নিচে কোনো অটোরিকশা ভাড়া পাওয়া যায় না।

সরকারি প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী সিএনজি চালকদের দৈনিক জমার হার ৬শ টাকার পরিবর্তে ৯শ টাকা দিতে হবে। যাত্রীদের প্রথম ২ কিলোমটারে ২৫ টাকার পরিবর্তে ৪০ টাকা এবং পরবর্তী প্রতি কিলোমিটার ভাড়ার হার ৭ দশমিক ৬৪ টাকার পরিবর্তে ১২ টাকা দিতে হবে। এছাড়া বিরতিকালের জন্য ভাড়ার হার (প্রতি মিনিটে) ১ দশমিক ৪০ টাকার পরিবর্তে ২ টাকা এবং যে কোন দূরত্বে যাত্রী পরিবহণে বাধ্যতামূলক সর্বনিম্ন ভাড়ার হার ২৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৪০ টাকা করা হয়েছে। এর আগে ২০১১ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর বিদ্যমান ভাড়ার হারটি নির্ধারিত ছিল।

এদিকে সিএনজি চালকরা প্রতারণামূলকভাবে বর্ধিত ভাড়া কার্যকর করার ঘোষণা না দিলেও তারা সরকারনির্ধারিত ভাড়ার চেয়ে দুই গুণ বেশি আদায় করছে যাত্রীদের কাছ থেকে। মূলত মিটার ছাড়াই চলাচল অব্যাহত রাখতে সিএনজি চালকরা লোক দেখানো ভাড়া না বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে যাত্রীরা অভিযোগ করেছেন।

চট্টগ্রাম ফোর স্ট্রোক, সিএনজি, অটোরিকশা, অটো টেম্পো চালক/ মালিক ঐক্য পরিষদের সভাপতি মো. নজরুল ইসলাম রাইজিংবিডিকে জানান, চট্টগ্রামে চলাচলরত কোনো সিএনজি অটোরিকশাতেই মিটার লাগানো নেই। তাই অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করলে উদ্ভট পরিস্থিতি হতে পারে। ফলে চট্টগ্রামে সরকারঘোষিত অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করা হবে না।

চট্টগ্রামের নিয়মিত অটোরিকশার যাত্রী ব্যাংক কর্মকর্তা তোফাজ্জল মাহমুদ জানান, সিএনজি চালক/মালিকদের ভাড়া না বাড়ানোর ঘোষণা নিছক প্রতারণা। সরকার সর্বনিম্ন দুই কিলোমিটার ভাড়া ৪০ টাকা নির্ধারণ করে দিলেও চট্টগ্রামে একই দূরত্বে যেতে ভাড়া গুণতে হয় সর্বনিম্ন ৮০ টাকা। এ ছাড়া চট্টগ্রাম মহানগরীতে সচরাচর একশ টাকার নিচে কোনো সিএনজি পাওয়া যায় না।

এদিকে চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশের সংশ্লিষ্ট দপ্তরের সূত্র মতে, চট্টগ্রামে ১৩ হাজার রেজিস্ট্রার্ড সিএনজি অটোরিকশা চলাচল করলেও এএফআর (অ্যাপ্লাইড ফর রেজিস্ট্রেশন) স্টিকার লাগিয়ে চট্টগ্রামে চলাচলরত অবৈধ সিএনজি অটোরিকশার সংখ্যা ১০ হাজার।

শেয়ার করুন