প্রাণভিক্ষা চাইলেন সাকা-মুজাহিদ

প্রকাশিত

নিজস্ব প্রতিবেদক : মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে ফাঁসির আদেশপ্রাপ্ত আসামি সালাউদ্দিন কাদের (সাকা) চৌধুরী ও আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ প্রাণভিক্ষা চেয়ে রাষ্ট্রপতির কাছে আবেদন করেছেন। শনিবার দুপুরে কারা কর্তৃপক্ষ এই তথ্য জানিয়েছে।

প্রাণভিক্ষার দু’টি আবেদন আজকেই রাষ্ট্রপতির কাছে পৌঁছে দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছে কারা কর্তৃপক্ষ। এর আগে প্রাণভিক্ষার বিষয়ে কথা বলতে দুই নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সাকা চৌধুরী ও মুজাহিদের সঙ্গে দেখা করেন।

এর আগে সংবাদ সম্মেলনে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর পরিবার অভিযোগ করেছেন,  ‘ত্রুটিপূর্ণ’ বিচারে সাকা চৌধুরীর মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়েছে। এই অভিযোগ জানিয়ে রাষ্ট্রপতিকে শনিবারই চিঠি দেওয়া হবে বলেও জানান।

এছাড়া পৃথক সংবাদ সম্মেলন করেন আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের পরিবার। মুজাহিদের স্ত্রী বলেন, ‘রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদকে সাংবিধানিক অভিভাবক মনে করেন আমার স্বামী।’ তার কাছে সুবিচার পাওয়া যাবে বলে তাদের প্রত্যাশার কথা জানান তিনি।

তিনি বলেন, ‘যেহেতু রাষ্ট্রপতি ব্যক্তিগত জীবনে একজন আইনজীবী ও আইনবিদ তাই আশা করি রাষ্ট্রপতি নাগরিক হিসেবে মুজাহিদের আইনি ও সাংবিধানিক অধিকার রক্ষায় কার্যকর ব্যবস্থা নেবেন।’

গত বুধবার একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী ও আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের ফাঁসির রায় পুনর্বিবেচনার (রিভিউ) আবেদন খারিজ করে দেয় সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। এর ফলে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সাকা চৌধুরী ও জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল মুজাহিদের ফাঁসির আদেশ বহাল থাকে।

এর পরদিন বৃহস্পতিবার পরিবারের সদস্যরা তাদের সঙ্গে দেখা করেন। কারা কর্তৃপক্ষও ফাঁসি কার্যকরের জন্য সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করে। গতকাল শুক্রবার সারাদিন প্রাণভিক্ষার বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। পরিবারের সদস্যরা দু’জনের সঙ্গে দেখা করার অনুমতি না পেয়ে ফেরত যান। আজ শনিবার দু’জনের পরিবারের সদস্যরা সংবাদ সম্মেলন করে তাদের অবস্থান তুলে ধরেন। এরপরই কারা কর্তৃপক্ষ জানায়, দু’জনই প্রাণভিক্ষার জন্য রাষ্ট্রপতির কাছে আবেদন করেছেন।

শেয়ার করুন