জিনগত কারণে সুবিধা পাচ্ছেন নারীরা

প্রকাশিত

বিশেষ প্রতিনিধি : পুরুষদের জীবনযাপন পদ্ধতিতে ঝুঁকি থাকে। তারা বেশি ধূমপান ও অ্যালকোহল পান করেন। এসব কারণে করোনা ভাইরাসে পুরুষরা আক্রান্ত হচ্ছেন বেশি এবং তাদের মৃত্যুঝুঁকিও বেশি। তবে জিনগত কারণে নারীরা বেশি সুবিধা পাচ্ছেন।

আজ মঙ্গলবার (২৩ জুন) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর আয়োজিত নিয়মিত অনলাইন বুলেটিনে অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা এসব তথ্য জানান। তিনি বলেন, পুরুষদের আক্রান্ত ও মৃত্যুঝুঁকি বেশি। যারা আক্রান্ত হচ্ছেন তারা গুরুতর হচ্ছেন বেশি।

অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা বলেন, পুরুষরা পূর্ব থেকেই অসংক্রামক ব্যাধিতে আক্রান্ত হন বেশি। হাইপারটেনশন, ডায়াবেটিস, ম্যালাইটাস, ক্রনিক রিনাল ডিজিজ ইত্যাদি ছাড়া পেশাগত অকুপেশনাল এক্সপোজার পুরুষদের বেশি; এজন্য ঝুঁকিও বেশি।

তিনি আরও বলেন, পুরুষরা স্মোকিং, অ্যালকোহল বেশি নেয়ার ফলে এবং সোশ্যাল আইসোলেশন কম থাকায় আক্রান্ত হন বেশি। অন্যদিকে নারীরা সুবিধা পাচ্ছেন, কারণ তাদের ডাবল এক্স ক্রোমোজোমের জন্য নারীদের জিনগতভাবে বেশি ইমিউন থাকে।

এ বিষয়ে ৪ মে গ্লোবাল হেলথ রিপোর্ট থেকে সায়েন্স ডিরেক্ট ডটকমে জারিমা শর্মা ও এরিন ডি মাইকোস ফিচার প্রকাশ করেছেন বলেও তিনি জানান।

পুরুষদের অনুরোধ করে ডা. নাসিমা সুলতানা বলেন, পুরুষরা সতর্ক থাকবেন বেশি। আরও বেশি সচেতন হন, সতর্ক থাকেন। যে স্বাস্থ্যবিধি মানতে বলি, সেগুলো মানবেন।

বুলেটিনে বলা হয়, নভেল করোনা ভাইরাসজনিত কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত হয়ে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৪৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এক হাজার ৫৪৫ জনের মৃত্যু হলো।

এ ছাড়া দেশে নতুন করে আরো তিন হাজার ৪১২ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মোট এক লাখ ১৯ হাজার ১৯৮ জন করোনায় আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে।

গত ৮ মার্চ দেশে নভেল করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) সংক্রমিত প্রথম রোগী শনাক্ত হয়। আর ১৮ মার্চ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়।র

শেয়ার করুন