খালার বাড়িতে বেড়াতে এসে লাশ হল ৩ শিশু

প্রকাশিত

মুক্তমন ডেস্ক: কুড়িগ্রামের রৌমারীতে খালার বাড়িতে বেড়াতে এসে সোনাভরী নদীতে গোসল করতে গিয়ে পানিতে ডুবে ৩ শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার বন্দবের ইউনিয়নের কলেজপাড়া গ্রামের পাশে সোনাভরী নদীতে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা আপন খালাতো ভাইবোন।

নিহতরা হল- গাইবান্ধার সাদুল্ল্যাপুর উপজেলার কিসমত বড়বাড়ি গ্রামের অলি উল্ল্যাহর মেয়ে পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী জিন্নাত খাতুন দীনা (১২), রৌমারী সরকারি কলেজের সহকারী অধ্যাপক হায়দার আলীর ছেলে অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী সিয়াম আহমেদ (১৩) এবং একই উপজেলার দাঁতভাঙ্গা ইউনিয়নের কাউয়ারচর গ্রামের আব্দুল কাদেরের ছেলে হামিম মিয়া (১৬)।

শিশুদের পরিবারের বরাত দিয়ে রৌমারী থানার ওসি আবু মো. দিলওয়ার হাসান ইনাম জানান, দুপুরের দিকে ওই তিন শিশুসহ ৫ জন কলেজপাড়ার পশ্চিম দিকে স্রোতহীন সোনাভরী নদীতে গোসল করতে যায়।

এ সময় জিন্নাত খাতুন দীনা নিজের অজান্তে নদীতে ড্রেজার দিয়ে বালু তোলার ফলে গভীর জায়গাটির মধ্যে চলে গেলে তলিয়ে যাওয়ার উপক্রম হয়।

এ সময় সিয়াম তাকে তুলতে গিয়ে সেও ডুবে যায়। পাশে থাকা হামিম দুজনকে উদ্ধার করতে গিয়ে সেও গভীর জলে তলিয়ে যায়।

এ সময় স্থানীয় আরও ২ জন ঘটনা দেখে চিৎকার করলে এলাকার লোকজন এগিয়ে আসে। ততক্ষণে গভীর পানিতে তলিয়ে যায় তিন শিশুই।

পরিবারের লোকজন তাদের দেখতে না পেয়ে নদীর গভীর জলে জাল ফেলে নিহত তিন শিশুকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করে।

শেয়ার করুন