অস্ট্রেলিয়ায় ঝড়ের তাণ্ডবে শিশুসহ নিহত একাধিক

প্রকাশিত

মুক্তমন ডেস্ক:অস্ট্রেলিয়ার ভিক্টোরিয়া অঙ্গরাজ্যে ঝড়ের তাণ্ডবে গাছ ভেঙ্গে চার বছরের এক শিশুসহ তিন জন নিহত হওয়ার খবর জানিয়েছে বিবিবি।

প্রতিবেদনে বলা হচ্ছে, ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১৫৮ কিলোমিটার গতির এ ঝড়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে, বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়েছে রাজ্যটির ৯৫ হাজার বাড়ির মানুষ।

প্রবল এই ঝড়ের প্রতাপে গাছ ভেঙ্গে মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে ভিক্টোরিয়ার প্রাদেশিক রাজধানী শহর মেলবোর্নের একটি শহরতলীতে— মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণের প্রকোপে রাজ্যটির অবস্থা এমনিতেই বিপর্যস্ত।

শুক্রবার মেলবোর্নের ৮৮ শহরতলীর বাসিন্দাদের সতর্ক করে বলা হয়েছে, ঝড়ের কারণে খাওয়ার পানি দূষিত হয়ে গেছে।

বৃহস্পতিবার রাজ্যের ওপর দিয়ে ঝড়টি বয়ে যাওয়ার সময় ভবন ক্ষতিগ্রস্ত আর বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া দুই সহস্রাধিক স্থানীয় বাসিন্দা জরুরি সহায়তার জন্য সরকারের সংশিষ্ট দফতরে ফোন করেন।

কর্তৃপক্ষের বরাতে বিবিসি জানিয়েছে, ব্লাকবার্ন নামের মেলবোর্নের একটি শহরতলীর ফুটপাতে চার বয়সী এক শিশুর উপর গাছ ভেঙে পড়ে।

এরপর তাকে হাসাপাতাল নেওয়া হলেও ততক্ষণে তার মৃত্যু হয়েছে। হেরাল্ড সানের প্রতিবেদন অনুযায়ী, সন্ধ্যা ৬টার দিকে বাবা এবং ছোট বোনের সঙ্গে ফুটপাত ধরে হাঁটছিল সে।

তার এক আত্মীয় দেশটির দৈনিক হেরাল্ড সানকে বলেন, ‘তার মাত্রই একটু হাঁটাহাঁটি করার জন্য বাড়ির বাইরে গিয়েছে— মাত্র দুই মিনিটের ব্যবধানে তার ওপর গাছটি ভেঙ্গে পড়লে শিশুটির মৃত্যু হয়।’

স্থানীয় সময় সন্ধ্যার দিকে শুরু হওয়া প্রচণ্ড ওই ঝড়ে গাছ ভেঙ্গে পড়ে ৫৯ বছর বয়সী এক ব্যক্তি এবং ৩৬ বছর বয়সী আরও এক নারীর মৃত্যু হয়েছে।

ঝড়ের কারণে একটি বাঁধের পানি ঢুকে পড়েছে শহরটির খাবার পানি সরবরাহ ব্যবস্থায়। ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে আড়াই লাখের বেশি বাড়ির মানুষ।

শেয়ার করুন